টেকনাফ উপজেলা আওয়ামীলীগের বিশেষ বর্ধিত সভা সম্পন্ন!

80

মোঃ আলমগীর,টেকনাফ ::
কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে ১৫ আগস্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালন উপলক্ষে প্রস্তুতি ও বিশেষ বর্ধিত সভা সম্পন্ন হয়েছে।

৬ আগস্ট মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে  উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাবেক সাংসদ অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী’র সভাপতিত্বে ও নেতা নজরুল ইসলামের পরিচালনায়
প্রধান অতিথি ছিলেন কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের প্রভাবশালী সদস্য কক্সবাজার-৪ (উখিয়া-টেকনাফ) আসনের নবম ও দশম জাতীয় সংসদের জনপ্রিয় সাবেক সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আব্দুর রহমান বদি সিআইপি।

তিনি বক্তব্যে বলেন, ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক ও বেদনার দিন। এই দিনেই ঘাতকেরা হত্যা করেছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে। তারা হত্যা করে শিশু-নারীসহ তাঁর পরিবারের অধিকাংশ সদস্যকে। আমাদের ইতিহাসে এ রকম নৃশংসতার নজির নেই। সে সময়ে বঙ্গবন্ধুর দুই কন্যা শেখ হাসিনা (বর্তমান প্রধানমন্ত্রী) ও শেখ রেহানা দেশের বাইরে ছিলেন বলে বেঁচে যান। পঁচাত্তরের ১৫ আগস্ট যাঁরা জীবন দিয়েছেন, তাঁদের সবার প্রতি জানাই শ্রদ্ধাঞ্জলি।

সভায় উপস্থিত ছিলেন,জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য রশিদ আহম্মদ,  শাহপরীরদ্বীপ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব সোনা আলী, সাধারন সম্পাদক মনির উল্লাহ, উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতা মোঃ আমিন ভূলু সাবেক (কাউন্সিলর),রশিদ আহম্মদ, আহম্মদ হোছন মেম্বার,মৌলনা ফরিদ আহম্মদ, পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মোঃ আলম বাহাদুর,হোয়াইক্যং ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ফরিদুল আলম জুয়েল,উপজেলা যুবলীগের ক্রীড়া সম্পাদক নুরুল আমিন সিকদার, সেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি সরওয়ার আলম,সাধারন সম্পাদক আব্দুল হক, হোয়াইক্যং ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি হারুন সিকদার,বাহারছড়া ইউনিয়ন  আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি মৌলভী আজিজ উদ্দিন, সাবেক সাধারন সম্পাদক আব্দুর রহমান বাহার,সেন্টমার্টিন ইউনিয়ন  আওয়ামীলীগের সভাপতি মুজিবুর রহমান, পৌর শ্রমিকলীগের সভাপতি জিয়াউর রহমান জিয়া।
আরো উপস্থিত ছিলেন বিভিন্ন ওয়ার্ডের সভাপতি সম্পাদক,রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ ও সাংবাদিকবৃন্দরা।

সভায় ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত, কালো ব্যাজ ধারণ, মসজিদ-মন্দিরে বিশেষ প্রার্থনা, হাসপাতালে উন্নত খাবার পরিবেশন, বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ, চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা ও আলোচনা সভা আয়োজনের বিভিন্ন উপকমিটি গঠন করা হয়। এবং দিবস টি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here