বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও সমাজ সেবক নূরুল ইসলাম চৌধুরীর ১৪তম মৃত্যু বার্ষিকী,সাবেক এমপি বদি ও শাহীন এমপির শ্রদ্ধাঞ্জলি

18

মিজানুর রহমান মিজান, টেকনাফ।জাগতিক মোহে কিংবা সুখের লোভে টাকার পিছে ছুটেনি কখনো। মানুষের মাঝে তিনি সম্মানীত। দিকে দিকে প্রশংসিত। গ্রামে গঞ্জে মফস্বলে কাংখিত; কক্সবাজার তথা সর্বত্ত সর্বাত্বক সংবর্ধিত। হাসি খুশি অমায়িক সর্বদা প্রাণোচ্ছল। জীবনের কল্পনায় মুখরিত, তিনি একজন আদর্শবান ব্যক্তি। সবার কাছে বিরল দৃষ্টান্ত; সামাজিকতা, রাজনৈতিক কিংবা শিক্ষার আলো ছড়ানোর জগতে নূরুল ইসলাম চৌধুরী প্রকাশ ঠান্ডা মিয়া জ্বলজ্বলে এক নক্ষত্র ।

সময়ের সঙ্গে সঙ্গে ঋতু বদলায়। পরিবর্তন হয় নামের। কিন্তু এমন কিছু নাম যা অজেয় হয়ে থাকে। নামের মৃত্যু হয় না। আজকের উখিয়ার ইতিহাসে একজন নূরুল ইসলাম চৌধুরী প্রকাশ ঠান্ডা মিয়া।

নুরুল ইসলাম চৌধুরী প্রকাশ ঠান্ডা মিয়া উখিয়ার রাজনীতিতে একটি নাম।একটি ইতিহাস।তিনি,একজন কীর্তিমান রাজনীতিবিদ এই কারনে যে মরহুমের কনিষ্ঠ মেয়ে উখিয়া টেকনাফের বর্তমান সংসদ সদস্য।
দুই বারের উখিয়া টেকনাফের সফল সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আবদুর রহমান বদি ওনার জামাতা। এতেই প্রমানিত হয় মরহুম নুরুল ইসলাম চৌধুরী কত বড় মাপের রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ছিলেন। কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলার বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও সমাজসেবক নূরুল ইসলাম চৌধুরী প্রকাশ ঠান্ডা মিয়ায় ১৪তম মৃত্যুবার্ষিকী (২৩মে) বৃহস্পতিবার।

উল্লেখ্য, নুরুল ইসলাম চৌধুরী প্রকাশ ঠান্ডা মিয়া ছিলেন উখিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান। তার বড় ভাই হুমায়ুন কবির চৌধুরী জেলা পরিষদের নির্বাচিত সদস্য এবং আওয়ামী লীগ নেতা। ছোট ভাই জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান।

তার চাচা হামিদুল হক চৌধুরী উখিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান , উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং উখিয়া বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেসা মুজিব মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ। চাচি অর্থাৎ হামিদুল হক চৌধুরীর স্ত্রী নিগার সুলতানা উখিয়া উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী।

তাঁর রুহের মাগফিরাত কামনার জন্যে আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধবের কাছে দোয়া চেয়েছেন তাঁর পরিবার। উল্লেখ্য, বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ও সমাজকর্মী নূরুল ইসলাম চৌধুরী প্রকাশ ঠান্ডা মিয়া ২০০৫ সালের ২৩ মে বার্ধক্যজনিত কারণে ইন্তেকাল করেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here